প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্নের উপহার আশ্রয়ন প্রকল্পে কথিত আওয়ামীগের নেত্রী বিউটির অর্থ-বাণিজ্য | আমাদেরবাংলাদেশ.কম
সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১১:৫২ অপরাহ্ন
সর্বশেষঃ
হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্টকে দুর্গাপূজা উপলক্ষে ৩ কোটি টাকা দিলেন প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ ভারত এর বন্ধুত্ব বিশ্বে রোল মডেল: নৌ-পরিবহন প্রতিমন্ত্রী শপথ নিলেন সিলেট-৩ এর সংসদ সদস্য হাবিবুর রহমান বেতন নিয়ে শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের চাপ না দেওয়ার নির্দেশ শিক্ষামন্ত্রীর দেড় বছরপর,কাল থেকে সারাদেশে খুলছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান মহাপরিচালক ঘোষণার পরই হাটহাজারী মাদ্রাসার মুফতি আব্দুস সালামের মৃত্যু শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ১২ সেপ্টেম্বর থেকে খোলা জাতীয় সংসদ সদস্যদের মৃত্যুর শোক নিয়েই যেনো চলতে হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্নের উপহার আশ্রয়ন প্রকল্পে কথিত আওয়ামীগের নেত্রী বিউটির অর্থ-বাণিজ্য ক্যাপ্টেন নওশাদের মরদেহ এখন ঢাকায়

প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্নের উপহার আশ্রয়ন প্রকল্পে কথিত আওয়ামীগের নেত্রী বিউটির অর্থ-বাণিজ্য

  • সর্বশেষ আপডেট বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১

 বিশেষ প্রতিনিধি ।। সরকারের অনেক অনেক শুভ উদ্যোগ যে অল্পসংখ্যক মানুষের কারণে প্রশ্নবিদ্ধ হয়, তার উদাহরণ আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর ভেঙে পড়া সহ নানা অনিয়ম ও অর্থ বাণিজ্য ।

২০২০ সালের ৭ মার্চ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষণা দিয়েছিলেন, দেশের একটি মানুষও গৃহহীন বা ভূমিহীন থাকবে না। তাঁর এই ঘোষণার পরপরই সারা দেশের ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য ঘর তৈরি করে দেওয়ার প্রকল্প গ্রহণ করা হয়।

এই প্রকল্পের আওতায় সারা দেশে ভূমি ও গৃহহীন আট লাখ ৮৫ হাজার ৬২২ পরিবারকে বাড়ি নির্মাণ করে দিচ্ছে সরকার। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ‘মুজিববর্ষে’ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার হিসেবে প্রতিটি গৃহহীন-ভূমিহীন পরিবারই পাচ্ছে দুর্যোগ-সহনীয় সেমিপাকা ঘর, আর ২ শতাংশ জমির মালিকানা।

কিন্তু সরকারের এই মহৎ প্রকল্পটিও প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে কিছুসংখ্যক মানুষের কারণে। গৃহনির্মাণ প্রকল্পে নানা অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। নিম্নমানের কাজের পাশাপাশি উপকারভোগীদের নিকট থেকে টাকা ও নির্মাণসামগ্রী নেওয়ার খবরও এসেছে গণমাধ্যমে।

এমন অর্থ বাণিজ্যের অভিযোগ উঠেছে বেনাপোলের কথিত মহিলা নেত্রী শার্শা উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক( প্রস্তাবিত কমিটি) বিউটি বেগমের বিরুদ্ধে। তিনি এই আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাইয়ে দেওয়ার লোভ দেখিয়ে দুস্থ বহু পরিবারের কাছ থেকে ঘর প্রতি ২৫
হাজার টাকা করে হাতিয়ে নিয়েছেন।

এমনই একজন দুস্থ মহিলা ওদুদের স্ত্রী পারুল বেগম (৪০) ভবারবের প্রামে ভাড়া বাসায় থাকেন। তিনি বলেন, ঐ নারী নেত্রী বিউটি আগে থেকেই আমার পরিচিত, তিনি আমাকে এবং আমার বোন আনোয়ারাকে প্রথমে ১৫ হাজার টাকা দিলে ঘর পায়য়ে দেওয়ার আশ্বাস দেয়। এই আশায় আমি তাকে সুদে ৭ হাজার ৫০০ শত টাকা দেয় এবং বাকি টাকা কিছুদিন পরে দিতে চায়। এর কিছুদিন পর তিনি ফোন করে বলেন তোমাদের নামে ঘরতো পাস হয়ে গেছে এখন তোমাদের ২ বোনের ২৫ হাজার করে ৫০ হাজার টাকা দিতে হবে। তখন আমি বলি আমার বড় ছেলে রাগ করছে, আমি এত টাকা দিয়ে ঘর নেবনা। আপনি ঘর অন্য কাউকে দিয়ে আমার টাকা ফেরত দেন কিন্তু উনি আমার টাকা নিয়ে ছলচাতুরী করছিলো। পরে সাংবাদিদের সহহতায় তিনি আমাকে ৫০০০ হাজার টাকা ফেরত দিয়েছে। টাকা ফেরত দেওয়ার দিন ৪ জন মহিলা নিয়ে এসে তিনি অনেক রাগ এবং হুমকিও দিয়ে গেছেন।

এবিষয়ে কথিত মহিলা নেত্রী বিউটির কাছে জানতে চাইলে, সাংবাদিক পরিচয় শুনে তিনি সাংবাদিকে হুমকি সহ অশালীন ভাষায় অশ্রব গালিগালাজ করেন। যে কল রেকডিং ইতিমধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক ভাইরাল হয়েছে। তার এই গালিগালাজ ও হুমকির রেকডিং শুনে সাধারণ মানুষ সহ বিভিন্ন সাংগঠনিক মহল তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করেছেন।

উল্লেখ্য কথিত নেত্রী বিউটি নিজেকে বেনাপোল ভূমি অফিসের নায়েবের স্ত্রী হিসাবে পরিচয় দিয়ে দুস্থ মহিলাদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে। নায়েব ও কথিত নেত্রী উভয়ই বেনাপোল পৌরসভাধীন দূর্গাপুর গ্রামে একটি ফ্লাট বাড়ি ভাড়া নিয়ে বসবাস করছেন। যাহার ফলে দুস্থ মহিলারা আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর পাওয়ার আসায় সহসায় কথিত নেত্রী বিউটির ফাদে পা দিচ্ছেন বলে আরো জানা যাই।

আমাদেরবাংলাদেশ.কম/শিরিন আলম

শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved ©আমাদের বাংলাদেশ ডট কম
Developed By amaderbangladesh.com