রাজশাহী সিটি পার্কে বৃক্ষরোপণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করলেন রাসিক মেয়র লিটন | আমাদেরবাংলাদেশ.কম
মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০৫:০৭ পূর্বাহ্ন

রাজশাহী সিটি পার্কে বৃক্ষরোপণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করলেন রাসিক মেয়র লিটন

  • সর্বশেষ আপডেট সোমবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৯

লিয়াকত হোসেন রাজশাহী: রাজশাহী মহানগর ‘জিরো সয়েল’ প্রকল্পের আওতায় নগরীর শালবাগান সিটি পার্কে বৃক্ষরোপণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেছেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন। রাজশাহীর বেসরকারি বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগিতায় আজ সোমবার দুপুর ১২টায় বৃক্ষরোপণের মাধ্যমে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন মেয়র। বৃক্ষরোপণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, নগরীতে নাগরিকদের জন্য

একটি উন্মুক্ত গ্রিন জোন বা পার্ক থাকা দরকার, যেখানে বড়টা হাটবে, বাচ্চা খেলাধূলা করবে, তারা মানসিক প্রশান্তি পাবে। এরই অংশ হিসেবে আমি প্রথম মেয়াদে মেয়র থাকাকালে এখানে কার্যক্রম শুরু করেছিলাম। কিন্তু পরবর্তী ৫ বছর আমি দায়িত্বে না থাকায় কার্যক্রম থেমে যায়। আজ বৃক্ষরোপণের মাধ্যমে নতুন করে এর কার্যক্রম শুরু করছি। বৃক্ষগুলো বড় হলে ছায়া সুশীতল হিসেবে পার্কটি গড়ে উঠবে। এছাড়া এখানে অর্থব্যয় করে পার্কটিকে সুন্দর করে সাজিয়ে দিবো। 

মেয়র আরো বলেন, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় গাছের চারা দিয়ে সহযোগিতায় করায় তাদের ধন্যবাদ জানাই। তাদের এই মহতি উদ্যোগকে স্বাগত জানাই।বৃক্ষরোপণ অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য ও বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপদেষ্টা প্রফেসর ড. এম সাইদুর রহমান খান, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. এম ওসমান গণি তালুকদার, রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমন ও প্রধান প্রকৌশলী মোঃ আশরাফুল হক। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের জার্নালিজম, কমিউনিকেশন এ্যান্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগের প্রভাষক জোবায়দা জ্যোতি।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন রাসিকের সংরক্ষিত ওয়ার্ড ৮ এর কাউন্সিলর নাদিরা বেগম, মাননীয় মেয়র‘র একান্ত সচিব মোঃ আলমগীর কবির, পরিবেশ উন্নয়ন সৈয়দ মাহমুদ-উল ইসলাম, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্বাহী পরিচালক শামীম আহসান পারভেজসহ অন্যান্য শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।উল্লেখ্য, সিটি পার্কে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রদত্ত প্রায় ২৫০টি গাছ গুলোর মধ্যে রয়েছে পলাশ, শিমুল, জারুল, কাঞ্চন, সোনালু, কৃষ্ণচূড়া, বকুল ও মহুয়া ইত্যাদি।

শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved ©আমাদের বাংলাদেশ ডট কম
Developed By amaderbangladesh.com